রবিবার, ১৬ জুন ২০২৪, ০২:৫৬ অপরাহ্ন

ফিলিস্তিনের সমর্থনে লন্ডনে ৩ লাখ মানুষের বিক্ষোভ

ডেইলী বেঙ্গল গেজেট রিপোর্ট
  • প্রকাশের সময় : রবিবার, ২৬ নভেম্বর, ২০২৩ ১০:২০ am

অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকায় স্থায়ী যুদ্ধবিরতি ও ফি‌লি‌স্তি‌নে শা‌ন্তি প্রতিষ্ঠার দাবিতে লন্ডনে বিক্ষোভ মিছিল করেছেন লাখো মানুষ। শনিবার (২৫ নভেম্বর) অনুষ্ঠিত এই বিক্ষোভে ৩ লাখ মানুষ অংশ নেন বলে জানিয়েছেন বিক্ষোভের আয়োজকরা।

রোববার (২৬ নভেম্বর) এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি।

প্যালেস্টাইন স‌লিডা‌রি‌টি ক‌্যা‌ম্পেইন, ফ্রেন্ডস অব আল-আকসা, মুস‌লিম অ্যাসো‌সি‌য়েশন অব ব্রিটেন, স্টপ দি ওয়‌ার কোয়া‌লিশন, প‌্যালেস্টা‌নিয়ান ফোরাম ইন ব্রিটেনসহ বেশ কয়েকটি সংগঠ‌নের গত শ‌নিবারের (১৮ নভেম্বর) ধারাবা‌হিকতায় এ বৃহত্তম বি‌ক্ষোভ মিছিলের আয়োজন করা হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গাজা উপত্যকায় স্থায়ী যুদ্ধবিরতির আহ্বান জানিয়ে লন্ডনের প্রাণকেন্দ্রে মিছিল করেছে লাখো ফিলিস্তিনিপন্থি বিক্ষোভকারী। গাজায় সাময়িক যুদ্ধবিরতি কার্যকরের পর লন্ডনে এটিই প্রথম বিক্ষোভ মিছিল।

পুলিশ বলেছে, বিক্ষোভ মিছিলে অংশ নেয়া কয়েকজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। যদিও ‘সংখ্যাগরিষ্ঠ’ বিক্ষোভকারীই আইনসম্মতভাবেই এদিন প্রতিবাদ করেছেন।

লন্ডনের মেট্রোপলিটন পুলিশ জানিয়েছে, বিক্ষোভ মিছিলকে কেন্দ্র করে লন্ডনের আশেপাশে প্রায় ১৫০০ আইনশৃঙ্খলা বাহিনী মোতায়েন করা হয়েছিল। আইন ভঙ্গ করতে পারে এমন শব্দ বা চিত্র সম্পর্কে সতর্ক করে বিক্ষোভকারীদের লিফলেট দেয়া হয়েছিল।

ফিলিস্তিনি পতাকা বহনকারী বিক্ষোভকারীদের সংঘাতে স্থায়ী যুদ্ধবিরতির দাবিতে প্ল্যাকার্ড নিয়ে অংশ নিতে দেখা গেছে।

এদিকে যুদ্ধবিরতির চুক্তি অনুযায়ী শনিবার (২৫ নভেম্বর) রাত স্থানীয় সময় ১টার দিকে কারাগারে বন্দি আরও ৩৯ ফিলিস্তিনিকে মুক্তি দিয়েছে ইসরাইল। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ইসরাইলি কারাগার কর্তৃপক্ষ।

এর প্রায় দুই ঘণ্টা আগে ১৩ ইসরাইলি নাগরিককে মুক্তি দিয়েছে হামাস। এর পাশাপাশি চার বিদেশি নাগরিককেও মুক্তি দেয়ার দাবি জানিয়েছে ফিলিস্তিনের স্বাধীনতাকামী গোষ্ঠীটি।

কাতারের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র মাজেদ আল-আনসারি এক এক্স পোস্টে লিখেছেন, ইন্টারন্যাশনাল কমিটি অফ দ্য রেড ক্রসের কাছে ১৩ জন ইসরাইলি ও চারজন বিদেশি নাগরিককে হস্তান্তর করা হয়েছে।

ফিলিস্তিনের গাজা উপত্যকায় শুক্রবার (২৪ নভেম্বর) সকালে চার দিনের সাময়িক যুদ্ধবিরতি শুরু হয়। কাতারের মধ্যস্থতায় হওয়া এই যুদ্ধবিরতির মধ্যদিয়ে গাজায় ইসরাইলের বোমাবর্ষণ বন্ধ হয়ে যায়।

যুদ্ধবিরতির চুক্তি অনুযায়ী প্রথমদিন স্থানীয় সময় বিকাল ৪টায় ১৩ জন ইসরাইলি ও ১২ জন থাই নাগরিককে মুক্তি দেয় হামাস। এর আড়াই ঘণ্টা পর কারাগার থেকে ৩৯ জন ফিলিস্তিনি বন্দিকে মুক্তি দেয় ইসরাইল।

আরো

© All rights reserved © 2023-2024 dailybengalgazette

Developer Design Host BD